Ticker

6/recent/ticker-posts

বায়োস কি এবং এর কাজ কি?

BIOS কি?

BIOS বা Basic Input Output System হল এমন একটি ছোট সফটওয়্যার যা মাদারবোর্ডের ছোট্ট একটি মেমোরি চিপ এ স্টোর থাকে। কম্পিউটার অন করার পর BIOS এই সফটওয়্যারটি সবার প্রথমে রান হয়। BIOS কে সফটওয়্যার ও হার্ডওয়্যার দুই বলা যায়। যেহেতু BIOS একটি Non Volatile ROM বা মেমোরি চিপ তাই একে হার্ডওয়্যার বলা যায় আবার এই চিপের মধ্যেই কম সাইজের একটি প্রোগ্রাম লোড করা থাকে তাই একে সফটওয়্যার ও বলা যায়। BIOS একটি ROM কিন্তু হার্ড ডিস্ক ফরম্যাট করলে বা রিপ্লেস করলে এর ডাটা ডিলিট হয় না। BIOS একটি ROM কিন্তু আমরা জানি RAM ROM এর চেয়ে দ্রুত কাজ করে তাই কিছু কিছু computer manufacturers কোম্পানি এমন ভাবে সিস্টেম তৈরি করে যাতে প্রতিবার সিস্টেম বুট হবার সময় BIOS এর ডেটা RAM এ কপি হয়ে চলে আসে আর সিস্টেম ফাস্ট বুট হয়, এবং একে কম্পিউটারের ভাষায় Shadowing বলে। BIOS বিভিন্ন হার্ডওয়্যার যেমন কিবোর্ড, মাউস, মনিটর প্রভৃতির Driver প্রদান করে থাকে। BIOS প্রথম ব্যবহৃত হয় 1975 সালে CP/M অপারেটিং সিস্টেমে।BIOS এর লেটেস্ট প্রযুক্তি হল UEFI যার পুরো নাম Unified Extensible Firmware Interface.
IBM এই BIOS কে দুই ভাগে ভাগ করেছে -
  1.  CBIOS যার পুরো নাম Compatibility BIOS.
  2.  ABIOS যার পুরো নাম Advanced BIOS.

Bios ki
BIOS Bangla Tutorial

BIOS এর কাজ কি?

কম্পিউটার অন করার পর সিস্টেম বুট হবার আগে, BIOS হার্ডওয়্যার সম্পর্কিত প্রবলেমের একটি টেস্ট চালায় যার নাম POST বা Power on Self Test, যেখানে BIOS কোন প্রবলেম ডিটেক্ট করলে বিভিন্ন উপায়ে তা জানিয়ে দেয় যেমন - বিপ বিপ সাউন্ডে, LED ফ্ল্যাশে বা কখনো মনিটরে Error Message দেখিয়ে। এরপর Bootstrap Loader হার্ড ডিস্কের কোথায় অপারেটিং সিস্টেম বা OS ফাইল আছে তা খুঁজে সেটা রান করতে সাহায্য করে। BIOS এর কারণেই একটি কম্পিউটারে অপারেটিং সিস্টেম রান হতে পারে।


BIOS আপডেট ও আপগ্রেড

প্রথম দিকে BIOS কে ROM Memory তে স্টোর করা হত এখন সেটাকে Flash Memory তে রাখা হয় যাতে BIOS আপডেট অথবা আপগ্রেড করা যায়।
বিভিন্ন সময় কম্পিউটারের Boot Time বেড়ে গেলে BIOS আপডেটের মাধ্যমে তা কমানো যেতে পারে।
BIOS আপডেট অথবা আপগ্রেড করা হয় নতুন নতুন ফিচার Add করা জন্য যেমন বড় স্টোরেজের হার্ড ডিস্ক সাপোর্ট, নতুন কোন মডেলের প্রসেসর সাপোর্ট প্রভৃতি এবং BIOS এ কোন Bug বা প্রবলেম হলে যাতে ঠিক করা যায়। তবে ব্যাকআপ না রেখে BIOS আপডেট করা বোকামির কাজ কারণ আপডেটের সময় বিভিন্ন কারণে BIOS করাপ্টও হতে পারে। তাই BIOS আপডেটের আগে তার ব্যাকআপ নিয়ে রাখা বুদ্ধিমানের কাজ হবে।

কীভাবে BIOS মেনু তে যেতে হয়?

বায়োস মেনু তে যাবার জন্য কম্পিউটার বুট আপ এর সময় Hotkey প্রেস করতে হয়। বিভিন্ন কোম্পানির কম্পিউটার বা ল্যাপটপের জন্য এই Hotkey গুলি আলদা আলাদা হয়ে থাকে। কম্পিউটার বুট আপের সময় এই Hotkey প্রেস করলে BIOS মেনু অন হয়ে যায় এবং সেখান থেকে ইচ্ছেমত কনফিগারেশন চেঞ্জ করা যায়।

bios bangla
বায়োস মেনু

বিভিন্ন কোম্পানির ল্যাপটপ অথবা কম্পিউটার মাদারবোর্ডের জন্য Hotkey গুলি কি কি? 

HP এর ল্যাপটপ ও কম্পিউটার মাদারবোর্ডের জন্য Hotkey হল ESC অথবা F10


MSI এর ল্যাপটপ ও কম্পিউটার মাদারবোর্ডের জন্য Hotkey হল DEL


Microsoft Surface Tablet এর জন্য Hotkey হল volume up button ( প্রেস করে ধরে রাখতে হবে কিছুক্ষণ )

Acer এর ল্যাপটপ ও কম্পিউটার মাদারবোর্ডের জন্য Hotkey হল F2 অথবা DEL


ASUS এর ল্যাপটপ ও কম্পিউটার মাদারবোর্ডের জন্য Hotkey হল F2 অথবা DEL


Dell এর ল্যাপটপ ও কম্পিউটার মাদারবোর্ডের জন্য Hotkey হল F2 অথবা F12


Lenovo এর ল্যাপটপ ও কম্পিউটার মাদারবোর্ডের জন্য Hotkey হল F1 অথবা F2 অথবা Enter + F1


Sony এর ল্যাপটপ ও কম্পিউটার মাদারবোর্ডের জন্য Hotkey হল F1, F2, অথবা F3


Samsung এর ল্যাপটপ ও কম্পিউটার মাদারবোর্ডের জন্য Hotkey হল F2


Toshiba এর ল্যাপটপ ও কম্পিউটার মাদারবোর্ডের জন্য Hotkey হল F2


Origin PC এর ল্যাপটপ ও কম্পিউটার মাদারবোর্ডের জন্য Hotkey হল F2


ভালো লাগলে শেয়ার করুন এবং কমেন্টে জানান, এই রকম আরও পোস্ট পেতে সাথে থাকুন Technical Bhaskar ব্লগের সাথে আর লাইক অথবা ফলো করে রাখুন Technical Bhaskar ব্লগের ফেসবুক পেজকেও।

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

0 মন্তব্যসমূহ